কুড়িগ্রামে হাফিজিয়া মাদ্রাসার ছাত্র বলাৎকারের অভিযোগে শিক্ষককে গণধোলাই!

রংপুর সারাদেশ
কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামের রৌমারীতে হাফিজিয়া মাদ্রাসার ছাত্র বলাৎকারের অভিযোগে এক শিক্ষককে গণধোলাই দিয়েছে বিক্ষুদ্ধ এলাকাবাসী।
জানা গেছে, রোববার সকালের দিকে নটানপাড়া হাফিজিয়া মাদ্রাসার এক ছাত্রকে বলাৎকার করেন শিক্ষক আঙ্গুর হোসেন (৩৮)।পরে মাদ্রাসা কমিটির কাছে মৌখিকভাবে অভিযোগ করেন নির্যাতিত ওই শিশুর বাবা।ঘটনাটি জানাজানি হলে ওই শিক্ষককে গণধোলাই দিয়ে মাদ্রাসা থেকে তাড়িয়ে দিয়েছে বিক্ষুদ্ধ এলাকাবাসী।এবং উপজেলা কোর্ট মসজিদের ইমামতির দ্বায়িত্ব হতে মধ্য ইছাকুড়ি গ্রামের ছাইদুর মওলানা’র ছেলে আঙ্গুর হোসেনকে সাময়িক বরখাস্তের সিদ্ধান্ত নিয়েছে মসজিদ কমিটি। এনিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।
নির্যাতিত ওই শিশুর বাবা অভিযোগ করে বলেন, ছেলেকে কুরআনের হাফেজ বানানোর জন্য মাদ্রাসায় পড়তে দিয়েছি কিন্তু বিকৃত ও কুরুচিপূর্ণ শিক্ষক আঙ্গুর হোসেন আমার ছেলের জীবনটা ধ্বংস করে দিলো। আমি এর ন্যায় বিচার চাই।
এব্যাপারে রৌমারী থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) মোন্তাছের বিল্লাহ বলেন, এ ঘটনায় কেউ থানায় অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *